ডেস্ক রিপোর্ট

১৮ এপ্রিল ২০২২, ৯:৩৩ অপরাহ্ণ

টিপাইমুখ বাঁধ নির্মাণের বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়াই ছিল এম ইলিয়াস আলীর একমাত্র অপরাধ: রিজভী

আপডেট টাইম : এপ্রিল ১৮, ২০২২ ৯:৩৩ অপরাহ্ণ

শেয়ার করুন

 

সিলেট জেলা বিএনপির ইফতার ও দোয়া মাহফিলে প্রধান বক্তার বক্তব্যে বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব এডভোকেট রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, টিপাইমুখ বাঁধ নির্মাণের বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়াই ছিল এম ইলিয়াস আলীর একমাত্র অপরাধ। তাঁর (ইলিয়াস আলী) গুমের ১০ বছর পেরিয়ে যাওয়ার প্রসঙ্গ উল্লেখ করে তিনি বলেন, এই সময়ে ইলিয়াস আলীসহ গুমকৃত নেতাকর্মীদের ফিরে পেতে প্রধানমন্ত্রী থেকে শুরু করে অনেকের প্রতিশ্রুতির কথা শুনেছি। প্রধানমন্ত্রী প্রতিশ্রুতি দিয়েও ইলিয়াস আলীকে ফিরিয়ে দিতে ব্যর্থ হয়েছেন।
গতকাল সোমবার নগরীর দক্ষিণ সুরমাস্থ একটি অভিজাত কনভেশন হলে এ ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। সিলেট জেলা বিএনপির নবনির্বাচিত সভাপতি আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট এমরান আহমদ চৌধুরীর পরিচালনায় ইফতার মাহফিলে ভার্চুয়ালী যোগ দিয়ে বক্তব্য রাখেন-বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান।
রুহুল কবির রিজভী আরো বলেন, ইলিয়াস আলীর মতো ছাত্রদল নেতা ইফতেখার আহমদ দিনার, জুনেদ আহমদ ও গাড়ী চালক আনসার আলীকেও গুম করা হয়েছে। তিনি বলেন, যে সরকার গুম করায় তাদের কাছে সন্ধানের দাবী জানিয়ে লাভ নেই। তাই ‘ফ্যাসিস্ট সরকারকে বিদায় না করতে পারলে গুমকৃত কারো সন্ধান মিলবে না। তাই বাকশালী সরকারের হাত থেকে জাতিকে রক্ষায় এগিয়ে আসতে হবে। দুর্বার আন্দোলনের মাধ্যমে এই ফ্যাসিস্ট সরকারকে বিদায় করতে সকল স্তরে সাংগঠনিক কার্যক্রমকে শক্তিশালী করতে হবে।’
অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন, বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ড. মোহাম্মদ এনামুল হক চৌধুরী ও খন্দকার আব্দুল মুক্তাদির, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ডা: সাখাওয়াত হাসান জীবন, কেন্দ্রীয় সদস্য ও সিলেট সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, কেন্দ্রীয় সমাজ কল্যাণ সম্পাদক কামরুজ্জামান রতন, কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরাফত আলী শপু, কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক কলিম উদ্দিন মিলন, কেন্দ্রীয় সহ-ক্ষুদ্র ঋণ বিষয়ক সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক, কেন্দ্রীয় সদস্য ডা: শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরী, কেন্দ্রীয় সদস্য আব্দুল কাহের চৌধুরী শামীম, কেন্দ্রীয় সদস্য মিজানুর রহমান চৌধুরী, কেন্দ্রীয় সদস্য রফিকুল ইসলাম হেলালী ও এডভোকেট হাদিয়া চৌধুরী মুন্নী।
জেলা ওলামা দলের আহ্বায়ক মাওলানা নুরুল হকের পবিত্র কুরআন তেলাওয়াতের মধ্য দিয়ে সূচিত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন, জেলা বিএনপির সাবেক আহ্বায়ক কামরুল হুদা জায়গীরদার, জেলার সাবেক সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট আব্দুল গাফফার, জেলা বিএনপি নেতা ফয়সল আহমদ চৌধুরী ও জেলা বিএনপির নবনির্বাচিত সাংগঠনিক সম্পাদক শামীম আহমদ। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন নিখোঁজ ছাত্রদল নেতা ইফতেখার আহমদ দিনারের বাবা ডাঃ মঈনুদ্দিন ও ছোট বোন তাহসিন শারমিন তামান্না, জুনেদ আহমদের ছোট ভাই হাসান মঈনুদ্দিন আহমদ।
মাহফিলে দলীয় নেতাকর্মী ছাড়াও জামায়াতে ইসলামী, খেলাফত মজলিস, ইসলামী ঐক্যজোট, এলডিপি, লেবারপার্টি, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি (বিজেপি পার্থ) সহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ, সাংবাদিক, পেশাজীবী ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধি সহ বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষ অংশ গ্রহণ করেন।
ইফতার মাহফিলে এম ইলিয়াস আলী, ছাত্রদল নেতা ইফতেখার আহমদ দিনার, জুনেদ আহমদ ও ইলিয়াস আলীর গাড়ি চালক আনসার আলী সহ গুমকৃত সকল নেতাকর্মীর সন্ধান কামনায় বিশেষ মোনাজাত করা হয়। এছাড়াও মাহফিলে সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান, তার ছোট ছেলে আরাফাত রহমান কোকোর মাগফেরাত কামনা, সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও সুস্থতা, ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা এবং দেশ-জাতির মঙ্গল কামনা করে মোনাজাত করা হয়। মোনাজাত পরিচালনা করেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সমাজ কল্যাণ সম্পাদক কামরুজ্জামান রতন।
সভাপতির বক্তব্যে আব্দুল কাইয়ুম চৌধুরী বলেন, তারেক রহমানের কাছে প্রতিশ্রুতি দিয়ে বলতে চাই, গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার আন্দোলনে যে কোন ত্যাগ শিকারে সিলেট জেলা বিএনপি প্রস্তুত রয়েছে। আমরা তৃণমূলের ভোটে নির্বাচিত হয়েছি। তাই তৃণমূল বিএনপিকে ঐক্যবদ্ধ করে ফ্যাসিস্ট সরকারের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে আমরা অঙ্গীকারাবদ্ধ। বিজ্ঞপ্তি।

শেয়ার করুন