ডেস্ক রিপোর্ট

২৫ মে ২০২২, ৫:৫৩ অপরাহ্ণ

ধর্মপাশায় পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ

আপডেট টাইম : মে ২৫, ২০২২ ৫:৫৩ অপরাহ্ণ

শেয়ার করুন

সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার ধূবালা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক দানিছুর রহমান চৌধুরীর বিরুদ্ধে ওই বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণিতে পড়ুয়া এক ছাত্রীকে (১০) যৌন নিপীড়ন করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

গতকাল মঙ্গলবার (২৪ মে) দুপুরে শ্রেণি কক্ষে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় বুধবার দুপুরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনওর) কাছে সুবিচার চেয়ে লিখিত অভিযোগ করেছেন যৌন নিপীড়নের শিকার ওই ছাত্রীটির মা।

এলাকাবাসী ও ওই ছাত্রীটির মায়ের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, গতকাল মঙ্গলবার দুপুর দেড়টার দিকে টিফিনঘন্টা চলাকালীন সময়ে অন্যান্য ছাত্র ছাত্রীরা ক্লাসের বাইরে চলে যায়। কিন্তু ওই ছাত্রীটি ক্লাসরুমেই থেকে যায়। এ অবস্থায় ছাত্রীটিকে একা পেয়ে সহকারী শিক্ষক দানিছুর রহমান চৌধুরী ছাত্রীটির শরীরের বিভিন্ন আপত্তিকর স্থানে হাত দেয়। এক পর্যায়ে ছাত্রীটির পরিহিত জামা জোরে খোলার চেষ্ঠা করলে ছাত্রীটি চিৎকার দিলে ওই শিক্ষকের হাত থেকে সে রক্ষা পায়। পরে কাঁদতে কাঁদতে ছাত্রীটি বাড়ি গিয়ে তার মাকে ঘটনাটি জানায়। পরে ওই ছাত্রীটির মা বিদ্যালয়ে এসে ঘটনাটি প্রধান শিক্ষকসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদেরকে অবগত করে সুবিচার চান।

এ ঘটনায় মঙ্গলবার বেলা দুইটার দিকে বিদ্যালয়ের কক্ষে এ নিয়ে একটি সভা হয়। সহকারী শিক্ষক দানিছুর রহমান চৌধুরী এমন ঘটনা ঘটাননি বলে সভায় উপস্থিত সকলের সামনে জানিয়ে দেন এবং ঘটনায় জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করেন ।
সহকারী শিক্ষক দানিছুর রহমান চৌধুরী বলেন, আমি এমন ঘটনা ঘটাইনি। ঘটনাটি পূর্ব পরিকল্পিত ও সাজানো।

প্রধান শিক্ষক মনমত চন্দ্র তালুকদার বলেন, ওই সহকারী শিক্ষক ঘটনাটি আমাদের কাছে অস্বীকার করেছেন। তাই এ নিয়ে আমার কিছু করা সম্ভব হয়নি।

ইউএনও মো.মুনতাসির হাসান বলেন, ঘটনাটি খুবই স্পর্শকাতর। তবে এ বিষয়ে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেয়ার করুন